চট্টগ্রামে গণপিটুনি দিয়ে ছাত্রলীগ নেতা খুন

0

কারেন্ট টাইমসঃ চট্টগ্রামের পাহাড়তলী থানা এলাকায় মহিউদ্দিন সোহেল নামে সাবেক একজন ছাত্রলীগ নেতাকে গণপিটুনী দিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। পাহাড়তলী বাজার সংলগ্ন রেল লাইন থেকে পুলিশ এক যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। স্থানীয়রা দাবি করেন, চাঁদাবাজির ঘটনাকে কেন্দ্র করে গণপিটুনিতে মহিউদ্দিন সোহেল (৩৫) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে।

আজ সোমবার (৭ জানুয়ারি) পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে। ডবলমুরিং থানার ওসি একেএম মহিউদ্দিন সেলিম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।তিনি বলেন, বেলা ১১টার দিকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ চমেক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে স্থানীয় সরাইপাড়া ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. সাবের আহমদ দাবি করেছেন, ব্যক্তিগত দ্বন্দ্বের জেরে সোহেলকে কৌশলে খুন করা হয়েছে। সোহেল কমার্স কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ছিলেন বলেও জানান তিনি।

ওসি মহিউদ্দিন সেলিম আরও বলেন, চাঁদাবাজি নিয়ে ক্ষোভ থেকে আজ সকালে ব্যবসায়ীরা গণপিটুনি দিলে তার মৃত্যু হয়। ব্যবসায়ীরা অভিযোগ করেছেন সরকারি দলের নাম ভাঙ্গিয়ে সোহেল চাঁদাবাজি করতো।

স্থানীয়রা বলেন, সোহেল বর্তমানে যুবলীগ অথবা আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত নেই। ছাত্র থাকা অবস্থায় সে কমার্স কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ছিল। এরপর কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের উপগ্রন্থাগার ও পাঠচক্র বিষয়ক সম্পাদক ছিলেন। এরপর সেইভাবে রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিল না।

তিনি আরও বলেন, চাঁদাবাজির ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যবসায়ীরার গণপিটুনি দিয়ে তাকে হত্যা করেনি। জাতীয় পার্টির রাজনীতির সঙ্গে জড়িত স্থানীয় যুবক ওসমানের সঙ্গে পাহাড়তলী বাজারের পাশে রেলওয়ের জায়গা দখল কেন্দ্রীক দ্বন্দ্ব ছিল তার। ওই দ্বন্দ্বের জের ধরে ওসমান ও তার সহযোগীরা কৌশলে তাকে হত্যা করে।

মহিউদ্দিন ছিলেন, সাবেক উপ-শিক্ষা ও পাঠচক্র সম্পাদক বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, কেন্দ্রীয় কমিটি ও সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন ছাত্রলীগ চট্টগ্রাম কমার্স কলেজ শাখার।

এ বিভাগের আরও খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.