বোয়ালখালীতে বিদ্রোহী প্রার্থীর পক্ষে একাট্টা সবাই

0

বোয়ালখালী প্রতিনিধি: বোয়ালখালীতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন ঘিরে উপজেলা আওয়ামী লীগের বিভক্তি নতুন মোড় নিয়েছে। নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীকে বিজয়ী করতে একাট্টা হয়েছেন একাধিক মনোনয়ন বঞ্চিত প্রার্থী।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, বোয়ালখালী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশী থাকলেও জেলা ও উপজেলা থেকে কেন্দ্রে একক নাম প্রস্তাব করা হয় বলে অভিযোগ ওঠে। ফলে মনোমালিন্যের সৃষ্টি হয় দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মাঝে।

এ নিয়ে চূড়ান্ত মনোনয়নের আগে দলের সাত মনোনয়ন প্রত্যাশীরা দলের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের কাছে লিখিত অভিযোগ দেন। দক্ষিণজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আবদুল কাদের সুজন, মুক্তিযোদ্ধা আবুল বশর, নুরুল ইসলাম, আহমদ হোসেন, আওয়ামী লীগ নেতা রেজাউল করিম রাজা, রেজাউল করিম বাবুল, বেলাল হোসেন স্বাক্ষরিত অভিযোগে তাদের মধ্যে যেকোনো একজনকে দলীয় মনোনয়ন দেওয়ার দাবি জানানো হয়।

শেষতক উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুল আলম নৌকা প্রতীকে দলীয় মনোনয়ন পান। তবে এ মনোনয়ন মেনে নেননি দলের মনোনয়ন বঞ্চিতরা। ফলে বিভক্তির চূড়ান্ত বহি:প্রকাশ ঘটে নির্বাচনের প্রার্থীতায়। স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আবদুল কাদের সুজন।

আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থীর পক্ষে সাবেক তুখোড় ছাত্র নেতা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক প্রচার সম্পাদক রেজাউল করিম বাবুলের সমর্থন আদায়ে ২৬ ফেব্রুয়ারী তার বাড়িতে অবস্থান নেন দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিনসহ আওয়ামীলীগ নেতারা। চলে দলের দুঃসময়ের কান্ডারী রেজাউল করিম বাবুলের মান ভাঙানোর পালা।

পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে অনুষ্ঠিতব্য বোয়ালখালী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী সাবেক উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুল আলম, জাতীয় পাটি মনোনীত প্রার্থী দিদারুল আলম ফজু, স্বতন্ত্র প্রার্থী দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আবদুল কাদের সুজন এবং জাসদ কেন্দ্রিয় কমিটির সহ-সভাপতি সৈয়দুল আলম।

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আবদুল কাদের সুজন বলেন,‘দুইবার দলের মনোনয়ন প্রত্যাশী ছিলাম। তবে তৃণমূলের মতামত না নিয়ে একক প্রার্থীর নাম প্রস্তাব করে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মনে কস্ট দিয়েছেন। বারবার জেলা কমিটির কেউ একজনের একক সিদ্ধান্ত নেতাকর্মীদের ওপর চাপিয়ে দিতে পারেন না। বিষয়টি কেন্দ্রকে জানিয়েই আমি নির্বাচনে অংশ নিয়েছি।

নৌকা প্রতীকের প্রার্থী নুরুল আলম বলেন, ‘নেতা-কর্মীরা নৌকা প্রতীকের পক্ষে কাজ করছে, এর বাইরে তারা যাবে না।’

এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ইসলামী ফ্রন্ট মনোনীত গতবারের নির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যান কাজী ওবাইদুল হক হক্কানী, উপজেলা আওয়ামী লীগের (একাংশ) সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা এস.এম সেলিম, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি মো. সেলিম উদ্দীন, যুবলীগ নেতা রিদুওয়ানুল হক টিপু ও মো. নাসির উদ্দীন।

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপি মনোনীত গত দুই বারের নির্বাচিত মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সাহিদা আকতার শেফু, উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শামীম আরা বেগম ও সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান প্রয়াত অশোক ভঞ্জের স্ত্রী সুপর্ণা ভঞ্জ নির্বাচনী মাঠে রয়েছেন।

ঘোষিত তপশীল অনুযায়ী আগামী ২৪ মার্চ বোয়ালখালী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

এ বিভাগের আরও খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.