রিপ্লেসমেন্ট হজযাত্রীর সংখ্যা বাড়ানোর দাবি জানালো হাব

0

সিটি নিউজ ডেস্ক :: আবারও রিপ্লেসমেন্ট হজযাত্রীর সংখ্যা বাড়ানোর দাবি জানিয়েছে হজ এজেন্সিগুলোর সংগঠন হাব। সংগঠনটি জানায়, বাংলাদেশ বিমান ও সৌদি এয়ারলাইনস মিলিয়ে ১১ হাজারেরও বেশি টিকেট এখনো অবিক্রিত রয়েছে।

নিবন্ধিত কোনো হজযাত্রী মারা গেলে বা গুরুতর অসুস্থতার কারণে যেতে না পারলে অন্য কাউকে হজ করার সুযোগ দেয় ধর্ম মন্ত্রণালয়। সে হিসেবে এবারও চার শতাংশ রিপ্লেসমেন্ট রেখেছে মন্ত্রণালয়। কিন্তু, এই অতিরিক্ত চার শতাংশ যাত্রী পাওয়ার পরও প্রায় চার হাজার রিপ্লেসমেন্ট প্রয়োজন বলে জানায় হাব।

আজ শনিবার হাবের মহাসচিব শাহাদাত হোসেন তসলিম বলেন, ‘দু-একদিনের মধ্যে এই সমস্যাটির সমাধান করতে হবে। কারণ, এই সমস্যাটি এটার আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পরে, সেটা কিন্তু আরো অনেক প্রস্তুতি আছে, প্রসেসিং আছে। তারপরে সেটা ভিসা কালেকশান হবে। সঙ্গত কারণে, সাত তারিখ পর্যন্ত সেটার জন্য কোনোভাবেই অপেক্ষা করা যাবে না। রিপ্লেসমেন্টের ঘোষণাটি আসতে হবে। শিগগিরই দু-একদিনের মধ্যে। যদি রিপ্লেসমেন্ট না দেওয়া হয়, তাহলে এক লাখ ২৭ হাজার যে হজযাত্রী আমাদের এখান থেকে যাবে, সে সংখ্যাটি তো আর যাচ্ছে না। তাহলে আসন ফাঁকা যাওয়াটাই স্বাভাবিক।’

অন্যদিকে, এ রিপ্লেসমেন্টের সিদ্ধান্ত মন্ত্রণালয়কে নিতে হবে বলে জানিয়েছে হজ অফিস।

হজ অফিসের পরিচালক সাইফুল ইসলাম বলেন, ‘এই বিষয়টি তো আমরা এখানে সিদ্ধান্ত নিতে পারব না। এটি মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত নিবে যে, এরা অতিরিক্ত পাবে কি পাবে না। এটি আগে যেমন পরবর্তী সময়ে চার পারসেন্ট বৃদ্ধির সময় যেভাবে আবেদন করেছে। আবেদনের সুবিধা-অসুবিধা যৌক্তিকতা বিশ্লেষণ করে পরবর্তী সময়ে, পর্যালোচনা করে মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত দিয়েছে। এখন যদি তারা আবারও নতুনভাবে চায়, আবেদন করেন, হাবের নেতারা আছেন, তাঁদের প্রতিষ্ঠান এজেন্সির সংগঠন আছে। তারা যদি বলে, সেগুলো দেখেশুনে এগুলো বিবেচনা করবে।’

গতকাল শুক্রবার যাত্রীর অভাবে বিমানের দুটি ফ্লাইট বাতিল করতে হয়েছে। গতকাল রাত ১২টা পর্যন্ত সৌদি আরব গেছেন মোট ৬০ হাজার ছয়জন। তবে, আজ পরিস্থিতি স্বাভাবিক ছিল। আজ  হ্জ ফ্লাইট রয়েছে মোট ১০টি।

আজ এক হজযাত্রী এনটিভি অনলাইনকে বলেন, ‘আমার প্রত্যাশা হচ্ছে, আল্লাহ যেন আমার হজটি কবুল করেন। ছেলেমেয়ে, বিবি-বাচ্চা সবার জন্য দোয়া করব।’

এ বিভাগের আরও খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.