অবশেষে পটিয়ায় চুমকি হত্যা মামলা সিআইডিতে

0

সুজিত দত্ত, পটিয়া প্রতিনিধিঃ চট্টগ্রামের পটিয়ার চাঞ্চল্যকর চুমকি হত্যা মামলাটি সিআইডি’কে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। জোবায়ের মোস্তাফা চুমকীর পিতা গোলাম মোস্তাফা পটিয়া সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে পুলিশী তদন্ত রিপোর্টের বিরুদ্ধে না-রাজী পিটিশন দিলে তা গতকাল শুনানী শেষে পটিয়া সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিজ্ঞ বিচারক বিশ্বেশ্বর সিংহ অধিকতর তদন্তের জন্য সিআইডি’তে প্রেরণের দির্দেশ দিয়েছেন।

জানা যায়, গত ১৪ নভেম্বর ১৮ইং পটিয়া উপজেলার কুসুমপুরা ইউনিয়নের বিনিনিহারা গ্রামে বোয়ালখালীর গোলাম মোস্তাফা মেম্বারের একমাত্র কন্যা জোবায়ের মোস্তাফা চুমকিকে হত্যা করে গলায় ফাঁস দিয়ে লাগিয়ে লাশ ফ্যানে ঝুলিয়ে রাখা হয়। পরে এটিকে আত্মহত্যা হিসেবে চালিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করা হয় বলে তার পিতা থানায় অভিযোগ করেন।

এতে ঘটনাটি হত্যা মামলা হিসেবে রেকর্ড না হওয়ায় তিনি পটিয়া সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে ১৮ নভেম্বর ১৮ইং একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। আদালতে বিষয়টির শুনানী শেষে ১ কার্যদিবসের মধ্যে মামলাটি গ্রহণ করে আদালতকে অবহিত করার জন্য ওসি পটিয়াকে নির্দেশ দেন বিজ্ঞ বিচারক। আদালতের নির্দেশনা মোতাবেক ১৮ নভেম্বরই এ মামলাটি পটিয়া থানায় হত্যা মামলা হিসেবে রেকর্ড করা হয়।

পরে পটিয়া থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা রেজাউল করিম মজুমদার এ মামলার ফাইনাল রিপোর্ট আদালতে দাখিল করলে এতে না-রাজী দেন বাদী গোলাম মোস্তাফা। গতকাল উভয় পক্ষের আইনজীবীদের শুনানী শেষে বিজ্ঞ আদালত তা অধিকতর তদন্তের জন্য সিআইডি’তে প্রেরণের নিদের্শ দেন বলে পটিয়া আদালতের পিপি বদিউল আলম জানান। বর্তমানে এ মামলার প্রধান আসামী খোরশেদুল আলম জুয়েল কারাগারে থাকলেও অপরাপর আসামীরা জামিনে রয়েছেন বলে সূত্রে প্রকাশ। এতে বাদী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন এড. মো. ফোরকান।

এ বিভাগের আরও খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.