চাকসু নির্বাচনে শিক্ষার্থীদের মতামতের পূর্ণ প্রতিফলন চাই

0

সিটি নিউজ,চট্টগ্রাম :   বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের কেন্দ্রীয় চেয়ারম্যান আল্লামা এম.এ মান্নান বলেন, দেশ-জাতি নির্বাচনের নামে বর্তমানে প্রহসন দেখছে। অনিয়ম-বিশৃঙ্খলার কালো থাবা হতে রেহাই পাইনি ডাকসুও। সম্প্রতি চাকসু নির্বাচনের জন্য ইতিবাচক সিদ্ধান্ত নিয়ে কমিটি গঠন করায় কতৃপক্ষকে সাধুবাদ জানান তিনি। তবে তা যেন নিছক আই ওয়াশের জন্য না হয়। অন্যথায় চাকসু নির্বাচন ও জাতির তামাশার খোরাক হবে। স্বাধীনতা আন্দোলনে ছাত্রনেতৃত্বের ভূমিকা ছিল বলিষ্ট। ডাকসু মতো চাকসুর নির্বাচনকে কলংকিত করা হলে সেই ছাত্রনেতৃত্বের মেরুদন্ডই ভেঙ্গে যাবে।

রোববার ৩১ মার্চ বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনা চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনায় চবি কেন্দ্রীয় লাইব্রেরী অডিটোরিয়ামে প্রতিনিধি সম্মেলন ও নবীন বরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

চবি ছাত্রসেনার সভাপতি ছাত্রনেতা মুহাম্মদ ইদ্রিসের সভাপতিত্বে এবং সাংগঠনিক সম্পাদক মনজুরুল ইসলাম ও কাউন্সিল প্রস্তুতি কমিটির সচিব আব্দুল্লাহ আল জাবের এর যৌথ সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের মান্যবর চেয়ারম্যান জননেতা আল্লামা এম এ মান্নান।

উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের প্রচার সচিব জননেতা রেজাউল করিম তালুকদার। প্রধান বক্তা ছিলেন বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনার কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ছাত্রনেতা দিদারুল ইসলাম কাদেরী। এতে কাউন্সিলর ছিলেন বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনার কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক ছাত্রনেতা মুহাম্মদ মুফিজুর রহমান।

বিশেষ অতিথি ছিলেন ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ মুরশেদুল হক, ইসলামী ফ্রন্ট চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সাধারণ সম্পাদক মাষ্টার মুহাম্মদ আবুল হোসাইন, চবি ছাত্রসেনার সাবেক সহ-সভাপতি ছাত্রনেতা সাইফুল ইসলাম নেজামী, সাবেক সহ-সাধারণ সম্পাদক ছাত্রনেতা ইকরাম হোসাইন সোহেল ও সাবেক সদস্য ছাত্রনেতা মুহাম্মদ শফিউল আলম। সভা শেষে অতিথিবৃন্দ নবীনদের শুভে”ছা জানান এবং নবীনদের অনুপ্রাণিত করতে তাদের সার্টিফিকেট ও কলম দিয়ে বরণ করেন।

এ সময় সংগঠনের নেতৃবৃন্দের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চবির সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশিদ, মুরাদ হোসেন, সালামত রেজা কাদেরী, শহীদুল ইসলাম মামুন, নাজিম উদ্দীন রানা, রাশেদুল্লাহ, ফয়সাল হোসেন জনি, নোমান বিন হাসান রেজা, আহমদ আল হাজ্জাজ প্রমূখ।

কাউন্সিল অধিবেশনে ডেলিগেটের ভোটে নির্বাচন কমিশন বিজ্ঞান অনুষদের মুহাম্মদ মামুনুর রশিদকে সভাপতি, সমাজবিজ্ঞান অনুষদে মঞ্জুরুল ইসলামকে সাধারণ সম্পাদক এবং কলা-মানববিদ্যা অনুষদের আব্দুল্লাহ আল জাবেরকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে ছাত্রসেনা চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ২০১৮-১৯ সেশনের জন্য ৬৫ জন বিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হয়।

সাথে আসন্ন চাকসু নির্বাচনে সমাজবিজ্ঞান অনুষদের শহিদুল ইসলাম মামুনকে ছাত্রসেনার সম্ভাব্য ভিপি প্রার্থী ঘোষণা করে প্রধান বক্তা দিদার কাদেরী বলেন, চাকসু নির্বাচনে ছাত্রসেনা হল কমিটি সহ একটি পূর্ণাঙ্গ প্যানেল নিয়ে চুড়ান্ত বিজয়ের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বীতা করবে।সুতরাং এখন থেকে সকলেই সার্বিক ভাবে প্রস্তুতি নিতে হবে।

এ বিভাগের আরও খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.