মালেক শাহ’র নামে বরইতলী-মগনামা সড়কের নামকরণ দাবী

0

কারেন্ট টাইমসঃ  অলিকুল সম্রাট, গাউসে মোখতার, হযরতুল আল্লামা শাহ আব্দুল মালেক আল-কুতুবী (রহ:)’র ১৯ তম বার্ষিক ওরশ ও ফাতেহা শরীফ মঙ্গলবার সম্পন্ন হয়েছে। সাগর পারাপারে নানাবিধ সমস্যা উপেক্ষা করে লক্ষাধিক ভক্তের মহামিলন ঘটে দরবারে। ভক্তদের দীর্ঘদিনের প্রাণের দাবী কক্সবাজার বিমানবন্দরকে হযরত শাহ আব্দুল মালেক (রহ:) এর নামে নামকরণের বিষয়টি আলোচনায় এসেছে এবারও। পাশাপাশি চকরিয়া বরইতলী থেকে মগনামা ঘাট পর্যন্ত রাস্তাটি ‘শাহ আবদুল মালেক রোড়’ নামকরণের জোর দাবী জানিয়েছেন ভক্তরা। তারা এ ব্যাপারে স্থানীয় সংসদ সদস্য জাফর আলম এর সার্বিক সহযোগীতা কামনা করেছেন।

দরবারের প্রেস অ্যান্ড মিডিয়া উইং এর সচিব এহসান আল-কুতুবী জানান, ওরস ও ফাতেহা শরীফে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে ছুটে আসা লাখো ভক্তের সমাগমে কুতুবদিয়ায় দীর্ঘ কয়েক কিলোমিটার এলাকা ছিল লোকে লোকারণ্য। ১৯ ফেব্রুয়ারী ওরস ও ফাতেহার প্রধান দিবস হলেও ১৮ ফেব্রুয়ারী থেকে বিভিন্ন কর্মসূচীর মাধ্যমে শুরু হয় কার্যক্রম। ১৯ ফেব্রুয়ারী আলোচনা, জিকির, মিলাদ, জেয়ারত ও তাবারুক বিতরণ শেষে গভীর রাতে বিশেষ মোনাজাতের মাধ্যমে দু’দিনব্যাপী ১৯ তম বার্ষিক ওরস ও ফাতেহা শরীফ এর সমাপ্তি ঘটে।

কর্মসূচীগুলোর বিভিন্ন অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন আওলাদে গাউসে মোখতার শাহজাদা আল্লামা মনিরুল মন্নান আল-মাদানী (মজিআ), শাহজাদা অহিদুল মিল্লাত আল-কুতুবী (মজিআ), শাহজাদা আতিকুল মিল্লাত আল-কুতুবী (মজিআ), শাহজাদা ছৈয়দুল মিল্লাত আল-কুতুবী (মজিআ), শাহজাদা মাওলানা জিল্লুল করিম আল-কুতুবী (মজিআ), শাহজাদা আব্দুল করিম আল-কুতুবী ( মজিআ)।

এতে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পাটির প্রেসিডিয়াম সদস্য সোলায়মান আলম শেঠ, দরবার এন্তেজামিয়া কমিটির সভাপতি আজিজুল কদর, মহাসচিব মুহাম্মদ শরীফ এম কম, বৃহত্তর চট্টগ্রাম উন্নয়ন সংগ্রাম কমিটির মহাসচিব এইচ এম মুজিবুল হক শুক্কুর, উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এস কে লিটন কুতুবী, অনলাইন প্রেসক্লাবের সভাপতি এম এ মান্নানসহ দেশ বরেন্য আলেমে দ্বীন, সাংবাদিক, লেখক,গবেষক, বুদ্ধিজীবি, ইসলামি চিন্তাবিদ, ও রাজনীতিবীদগন।

শেষ অধিবেশনের সভাপতি দরবার শরীফের পরিচালক শাহজাদা শেখ ফরিদ আল-কুতুবী (মজিআ)’র সমাপনী ভাষন ও বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর ঐক্য-সংহতি কামনা করে বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করেন।

এ বিভাগের আরও খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.